July 6, 2022, 12:25 pm
শিরোনামঃ
তারাগঞ্জ উপজেলায় বিদ্যুৎ লোডশেডিংয়ে জনজীবন বিপর্যস্ত- জ্বালানি সংকটে উৎপাদনে বিঘ্ন উলিপুরে পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্ট্রের পক্ষ থেকে ত্রাণ বিতরণ বাংলাদেশ কেমিস্টস্ এন্ড ড্রাগিস্টস্ সমিতি তারাগঞ্জ উপজেলা শাখার সভাপতি আকতার সম্পাদক এমদাদুল কৃষি কর্মকর্তা উর্মি তাবাসসুমের অবহেলায় ঝিমিয়ে গেছে তারাগঞ্জের কৃষিখাত লালমনিরহাটে প্রাকৃতিক দুর্যোগের মধ্যেও এমপি’র উন্নয়ন প্রকল্পের কাজ সম্পন্ন রাণীশংকৈলে কৃষক লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলনে সভাপতি রহিম-সাধারণ সম্পাদক দ্বিগেন্দ্র উলিপুরে ৩’শ বন্যার্ত পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ উলিপুরে পানিতে ডুবে শিশুর মৃত্যু কুড়িগ্রামে বাবার পরকীয়ার জেরে ছেলে বাবলু হত্যা মামলায় পাল্টাপাল্টি মানব বন্ধন কুড়িগ্রামে সহায়তা বানভাসিদের পাশে বিন নেটওয়ার্ক ফাউন্ডেশন

পুলিশ হেফাজতে দুই জনের মৃত্যু তদন্তে নেই অগ্রগতি ময়নাতদন্ত একমাত্র ভরসা পুলিশ

এস. কে সাহেদ, লালমনিরহাট প্রতিনিধিঃ
  • সময় : Sunday, May 22, 2022
  • 79 ভিউ
লালমনিরহাটে পুলিশ হেফাজতে দুই মৃত্যু মামলার তদন্ত চলছে মন্থরগতিতে। তদন্ত রিপোর্ট আসেনি বলেই দায় এড়িয়ে যাচ্ছে পুলিশ। এদিকে বিকাশ ব্যবসায়ী হত্যা মামলার এক মাস পেরিয়ে গেলেও কোন ক্লু’ই খুঁজে পায়নি পুলিশ।
চলতি বছরের ৯জানুয়ারি হাতীবান্ধা উপজেলার ভেলাগুড়ি ইউনিয়নের পূর্ব কাদমা মালদাপাড়া এলাকার বিশেশ্বর রায়ের পুত্র হিমাংশুর বাড়ি থেকে পুলিশ তার স্ত্রী ছবিতা রানীর (৩০)  মরদেহ উদ্ধার করে। স্ত্রীর মৃত্যুর কারণ জানতে স্বামী হিমাংশু রায়কে আটক করে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ। পরে সন্ধ্যায় পুলিশ হেফাজতেই তার মৃ্ত্যু হয়।
হিমাংশুর পরিবার থেকে অভিযোগ উঠে, সুস্থ্য অবস্থায় ধরে নিয়ে গিয়ে থানায় নির্যাতন করে মেরে ফেলা হয়েছে তাকে। তবে পুলিশের দাবী, জিজ্ঞাসাবাদ শেষে তাকে থানার একটি রুমে একা রাখা হয়। ওই রুমে হিমাংশু রায় ওয়াইফাই (ইন্টারনেট) সংযোগের তার গলায় পেঁচিয়ে জানালার সাথে লাগিয়ে আত্নহত্যার চেষ্টা করেন। পরে টের পেয়ে পুলিশ তাকে দ্রুত স্থানীয় হাসপাতালে নিলে কর্মরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
পুলিশ হেফাজতে মৃত্যু হিমাংশু মামলার তদন্ত প্রতিবদন ৪মাসেও জমা হয়নি। হিমাংশুর পরিবারের অভিযোগ, পুলিশ হেফাজতে মৃ্ত্যু হিমাংশু মামলার তদন্ত অত্যন্ত ধির গতিতে চলছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট পাওয়ার জন্য পুলিশ কোন পদক্ষেপ নিচ্ছে না। গত ৪মাসেও তদন্ত প্রতিবদন প্রস্তুত করেনি পুলিশ।
মামলার তদন্ত কর্মকর্তা থানার এসআই আজিজুর রহমান বলেন, হিমাংশু মৃ্ত্যু মামলার ময়না তদন্ত (ভিসেরা) রিপোর্ট এখনো আসেনি।  তাই তদন্ত প্রতিবদন প্রস্তুত করা সম্ভব হয়নি।
এ ব্যাপারে হাতিবান্ধা থানার ওসি এরশাদুল হক বলেন, আমরা হিমাংশু মৃ্ত্যু মামলার ময়না তদন্ত  রিপোর্ট এর জন্য যোগাযোগ অব্যহত রেখেছি। রিপোর্ট পেলেই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।
এদিকে গত ১৪ এপ্রিল রাতে বৈশাখী মেলায় জুয়া খেলা সন্দেহে রবিউল ইসলামকে আটক করে সদর থানা পুলিশ। এর কিছুক্ষণ পরে সদর হাসপাতালে রবিউলের মৃত্যু হয়। নিহতের পরিবারের দাবি পুলিশের নির্যাতনে তার মৃত্যু হয়েছে। পুলিশের লাথিতে গোপনাঙ্গে আঘাত পায় রবিউল । এ ঘটনায় বিচার দাবিতে টানা দুই দিন মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করে স্থানীয়রা। পরে অভিযুক্ত সদর থানার এসআই হালিমকে পুলিশ লাইনে ক্লোজড করা হয় এবং অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আতিকুল হককে প্রধান করে তিন সদস্যের তদন্ত কমিটি ঘটনা করা হয়। কিন্তু এক মাস পেরিয়ে গেলেও প্রতিবেদন জমা দিতে পারেনি পুলিশের করা ওই তদন্ত কমিটি।
উল্টো পুলিশের পক্ষ থেকে দাবী করা হয়, জুয়া খেলার অভিযোগে আটক করে থানায় আনার পথে রবিউল অসুস্থ অনুভব করলে তাকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে উন্নত চিকিৎসার কন্য রংপুরে নেয়ার প্রস্তুতিকালে তার মৃত্যু হয়।
অপরদিকে পুলিশ হেফাজতে রবিউল মৃত্যুর ঘটনার কয়েকদিন পর গত ২০এপ্রিল রাতে জেলার কালীগঞ্জ উপজেলা আইয়ুব আলী (৪০) নামে এক বিকাশ ব্যবসায়ীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। ব্যবসায়ী আইয়ুব আলী দোকান বন্ধ করে  মোটরসাইকেল যোগে বাড়ি ফিরছিল। পথিমধ্যে তাকে কুপিয়ে মৃত্যু নিশ্চিত করে হত্যা কাজে ব্যবহৃত রামদা ফেলেই পালিয়ে যায় দুর্বৃত্ততা। এসময় রহস্যজনক কারণে ব্যবসায়ীর বিকাশ ব্যবসার টাকা নিলেও মোটরসাইকেল রেখে যায় দুর্বৃত্ততা। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের এক মাস পেরিয়ে গেলেও পুুলিশ ওই বিকাশ ব্যবসায়ী হত্যা মামলার কোন ক্লু’ই খুঁজে পায়নি।
এ ব্যাপারে লালমনিরহাটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রবিউল ইসলাম বলেন, পুলিশ হেফাজতে দুই মৃত্যুর ঘটনা ও বিকাশ ব্যবসায়ী হত্যা মামলার তদন্ত অব্যহত রয়েছে। ময়না তদন্ত  রিপোর্ট এর জন্য যোগাযোগ করা হচ্ছে। রিপোর্ট পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরও খবর
© All rights reserved © 2019 LatestNews
Designed By BONGGONEWS.COM
themesba-lates1749691102